Latest News

16Apr 2022

২ এপ্রিল ২০২২ “১৫ তম বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস” উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের “ইনস্টিটিউট অব পেডিয়াট্রিক নিউরোডিজঅর্ডার এন্ড অটিজম (ইপনা)”- কর্তৃক সপ্তাহব্যাপী অনুষ্ঠানমালার আয়োজন করা হয়।
অনুষ্ঠানমালার আজ সপ্তম দিনে অটিজম বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন শিশুদের থেরাপি ও ম্যানেজমেন্ট সম্পর্কিত বিষয়ের উপর অভিভাবক প্রশিক্ষোণ অনুষ্ঠিত হয়। এই প্রশিক্ষণের মাধ্যমে অভিভাবকগণ অটিজম বিষয়ক সচেতনতা বৃদ্ধির পাশাপাশি কিভাবে শিশুদের স্পীচ ও সেন্সরি বিষয়ক সমস্যাগুলো চিহ্নিত করা যায় তা জানতে পারবেন এবং সেই অনুযায়ী বাসায় ‘হোম প্ল্যান’ করতে পারবেন। এতে অটিজম বৈশিষ্ট্যপূর্ণ শিশুর সামাজিক যোগাযোগ দক্ষতার উন্নতির সাথে সাথে তার আবেগীয় ক্ষমতা ও কর্মদক্ষতাও বিকশিত হবে। বিভিন্ন থেরাপিউটিক কৌশল অবলম্বন করে কিভাবে তাদের প্রাত্যহিক কর্মদক্ষতা বাড়ানো যায় তা হাতে-কলমে দেখানো হয়।
সপ্তাহব্যাপী অনুষ্ঠানমালার অংশ হিসেবে ৩ এপ্রিল অটিজম বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন শিশু ও তাদের অভিভাবকদের অংশগ্রহণে এক বর্ন্যাঢ্য র‍্যালীর আয়োজন করা হয়। র‍্যালিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডাঃ শারফুদ্দিন আহমেদ এর নেতৃত্বে প্রশাসনিক ভবন থেকে আরম্ভ করে বটতলা হয়ে ‘ই’ ব্লকে গিয়ে শেষ হয়। গত ৫ এপ্রিল ইপনা’তে অটিজম বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন শিশু ও তাদের অভিভাবকদের জন্য আয়োজন করা ফ্রি হেলথ ক্যাম্প।
এছাড়া, গত ৪ এপ্রিল অনুষ্ঠিত হয় অটিজম বিষয়ক এক সায়েন্টিফিক সেমিনার। এতে বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্যসহ অন্যান্য উর্ধতন কর্মকর্মাগণ উপস্থিত ছিলেন। সেমিনারে Differential ÒDiagnosis of Speech Delays-Doctors Should Know – শীর্ষক বিষয়ের উপর ভারতের Ummeed Child Development Center, Mumbai থেকে অটিজম বিশেষজ্ঞ ও ডেভল্পমেন্ট পেডিয়াট্রিসিয়ান ডঃ লীরা লোবো এবং ডঃ মানিষা মুখিজা বক্তব্য রাখেন।
এর আগে বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস উপলক্ষে প্রতিবারের ন্যায় এবারো ১ এপ্রিল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান প্রধান ভবনসমূহে নীল বাতি প্রজ্জ্বলন করা হয়।
উল্লেখ্য, ইপনা কর্তৃক আয়োজিত সপ্তাহব্যাপী অনুষ্ঠানমালায় ছিলো এপ্রিল ১ তারিখে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে নীল বাতি প্রজ্জ্বলন, ২ তারিখে সরকার কর্তৃক আয়োজিত অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ। এপ্রিল ৪ তারিখে সায়েন্টিফিক সেমিনার, ৫ তারিখে ফ্রি হেলথ ক্যাম্প, ৬ তারিখে অভিভাবক প্রশিক্ষণ (সাইকোলজিক্যালঅভিভাবক প্রশিক্ষণ) ও ৭ তারিখে অভিভাবক প্রশিক্ষণ ( থেরাপি সংক্রান্ত)।

04Apr 2022
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) অটিজম সচেতনতায় ‘ডিফারেন্টশিয়াল ডায়াগোসিস অফ স্পিচ ডিলেস- ডক্টর সুড নো’ শীর্ষক বৈজ্ঞানিক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার ৪ এপ্রিল ২০২২ খ্রি দুপুর ১২ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ই ব্লকের সেমিনার কক্ষে এর আয়োজন করে ইনস্টিটিউট অফ পেডিয়াট্রিক নিউরোডিসঅর্ডার এন্ড অটিজম (ইপনা)।
সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন মাননীয় উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ বলেন, বেশ কিছু দিন আগেও দেশে বিশেষ বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন শিশুরা অবহেলিত ছিলেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ও তাঁর সুযোগ্য কন্যা আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন অটিজম বিশেষজ্ঞ সায়মা ওয়াজেদের উদ্যোগের ফলে বিশেষ বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন শিশুরা অনেক সুযোগ সুবিধা পাচ্ছে। তাদের জীবন যাপনের মানোন্নয়নে জননেত্রী শেখ হাসিনা প্রতিনিয়ত উদ্যোগ নিচ্ছেন।
বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবসে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষিত উদ্যোগ তুলে ধরে উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ বলেন, বিশেষ বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন শিশুরা আর অস্বাভাবিক থাকবে না। বর্তমান সরকার প্রধানের উদ্যোগ বাস্তবায়িত হলে তারা সম্পদে পরিণত হবে। আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন অটিজম বিশেষজ্ঞ সায়মা ওয়াজেদ পুতুল এসবের দেখভাল করছেন। আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কিছু প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে এসব বিশেষ বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন শিশুদের যত্ন নিচ্ছেন। এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ইপনা প্রথম স্থানে রয়েছে।
অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর মহানুভবতার কারণেই সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে সম্পূর্ণ বধির শিশুরা ককলিয়ার ইমপ্ল্যান্টের মাধ্যমে তারা স্বাভাবিক জীবনে ফিরে যেতে পারছে। প্রত্যেক বধির শিশুর জন্য প্রায় অর্ধকোটি টাকা মূল্যের এই মহতী চিকিৎসাসেবা কার্যক্রম সম্পূর্ণ বিনামূল্যে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে দেয়া হচ্ছে। ফলে যেসব মা বাবা কোনদিন সন্তানের মুখে মা বাবা ডাক শুনতে পাননি; তারা মা বাবা ডাক শুনতে পারছেন।
সেমিনারে সম্মানিত অতিথি উপস্থিত ছিলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ^বিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. ছয়েফ উদ্দিন আহমদ সপু। সেমিনারে সভাপতিত্ব করেন শিশু নিউরোলজি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. গোপেন কুমার কুন্ডু। সেমিনারে অনলাইনে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ভারতের ডেভলপমেন্টাল পেডিট্রিশিয়ান ডা. লীরা লোবো ও ডা. মনিষা মুখিজা। এছাড়া সেমিনারে ইপনার উপ পরিচালক (একাডেমিক) সহযোগী অধ্যাপক ডা. কানিজ ফাতেমা, শিশু নিউরোলজিস্ট ডা. মাজহারুল মান্নান প্রমুখসহ উক্ত বিভাগের শিক্ষক শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।
প্রসঙ্গত, বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস উপলক্ষ্যে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় সপ্তাহব্যাপী ৪ এপ্রিল বৈজ্ঞানিক সেমিনার, ৫ এপ্রিল অটিজম বৈশিষ্টসম্পন্ন শিশুদের জন্য ফ্রি মেডিক্যাল ক্যাম্প, ৬ এপ্রিল অভিভাবক প্রশিক্ষণ থেরাপীর আয়োজন করেছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ইপনা।

Click Here to See the all Photos of WAAD 2022

04Apr 2022
‘এমন বিশ্ব গড়ি, অটিজম বৈশিষ্ট্যসম্পন্ন ব্যক্তির প্রতিভা বিকশিত করি’ স্লোগানকে নিয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস -২০২২ পালিত হয়েছে। রোববার (৩ এপ্রিল ২০২২ খ্রি ) সকাল ৯টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে দিবসটি উপলক্ষ্যে এক র‌্যালির আয়োজন করে ‘ইনস্টিটিউট অব পেডিয়াট্রিক নিউরোডিসঅর্ডার এন্ড অটিজম (ইপনা)’। র‌্যালিটি প্রশাসনিক ভবনের (বি ব্লক) সামনে থেকে শুরু হয়ে বটতলা, টিএসসি, ডি ব্লক অতিক্রম হয়ে এফ ব্লকে গিয়ে শেষ হয়।
র‌্যালিতে প্রধান অতিথি হিসেবে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ বলেন, বঙ্গবন্ধু মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের এক গবেষণা দেখা গেছে প্রতি ১০ হাজার শিশুর মাঝে ১৭ জন অটিজম সংক্রান্ত বিশেষ বৈশিষ্টসম্পন্ন রয়েছে। আমাদের এখানে অটিজম নিয়ে শিক্ষা- প্রশিক্ষণ, চিকিৎসা ও গবেষণার সুয়োগ রয়েছে। তাই তাদের নিয়ে কেউ দুশ্চিন্তা না করে এই সুযোগকে কাজে লাগাতে হবে।
অভিভাবকদের সচেতনতার উদ্দ্যেশে উপাচার্য বলেন, শিশুর আচরণ কিংবা চলাফেরায় কোন ধরনের অস্বাভাবিক লক্ষণ দেখতে পান, তবে কালক্ষেপণ না করে দ্রুত আমাদের এখানে নিয়ে আসবেন। আমরা শিশুদের দ্রুত স্ক্রিনিং করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেবো। শিশু যদি অটিজম আক্রান্ত হয় তবে কেউ মন খারাপ করবেন না। স্টিফেন হকিন্সের মত বিশ্বের বড় বড় প্রতিষ্ঠিত ব্যক্তিদের অনেকেই অটিজম আক্রান্ত বিশেষ শিশু ছিলেন। অটিজম শিশুরা যদি সঠিক পরিচর্চা পান তবে তারা অনেক স্বাভাবিক শিশুর থেকেও বেশী সম্ভাবনাময় হয়ে ওঠেন।
অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ বলেন, প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর সুযোগ্য কন্যা, আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন অটিজম বিশেষজ্ঞ, স্কুল সাইকোলজিস্ট, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক এ্যাডভাইসরি প্যানেলের বিশেষজ্ঞ, বাংলাদেশের অটিজম বিষয়ক জাতীয় উপদেষ্টা কমিটির সভাপতি জনাব সায়মা ওয়াজেদ হোসেন পুতুল আমাদের এখানে ইপনায় অনারারি শিক্ষক হিসেবে যোগদানের প্রস্তাব দেয়া হয়েছে। অটিজম আক্রান্ত বিশেষ শিশুদের পুনর্বাসনের জন্য বিগত সময়ের চেয়ে বেশী উদ্যোগ নেয়ার জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদও জানান উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ ।
র‌্যালিতে সংক্ষিপ্ত আলোচনায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ডা. একেএম মোশাররফ হোসেন, উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. ছয়েফ উদ্দিন আহমদ, উপ উপাচার্য (গবেষণা ও উন্নয়ন) অধ্যাপক ডা. জাহিদ হোসেন, কোষাধক্ষ্য অধ্যাপক ডা. মো. আতিকুর রহমান, শিশু নিউরোলজি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. গোপেন কুমার কুন্ডু, ইপনার উপ পরিচালক (প্রশাসন) সৈয়দা তাবাসসুম আলম, উপ পরিচালক (একাডেমিক) সহযোগী অধ্যাপক ডা. কানিজ ফাতেমা, শিশু নিউরোলজিস্ট ডা. মাজহারুল মান্নান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
প্রসঙ্গত, বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস উপলক্ষ্যে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় সপ্তাহব্যাপী ৪ এপ্রিল বৈজ্ঞানিক সেমিনার, ৫ এপ্রিল অটিজম বৈশিষ্টসম্পন্ন শিশুদের জন্য ফ্রি মেডিক্যাল ক্যাম্প, ৬ এপ্রিল অভিভাবক প্রশিক্ষণ থেরাপীর আয়োজন করেছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ইপনা।

 

Click Here to See the all Photos of WAAD 2022

20Mar 2022

১৭ মার্চ ২০২২ তারিখ, বৃহস্পতিবার সকাল ৯ ঘটিকায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) অবস্থিত ইপনা কর্তৃক আয়োজিত বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিক ও জাতীয় শিশু দিবস ২০২২ উপলক্ষ্যে চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলায় অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সকালে কর্মসূচির উদ্ভোধন করেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের মাননীয় উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ডা.  একেএম মোশাররফ হোসেন, উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. ছয়েফ উদ্দিন আহমেদ, কোষাধক্ষ্য  অধ্যাপক ডা. আতিকুর রহমান, রেজিস্ট্রার অধ্যাপক ডা. এবিএম আব্দুল হান্নান প্রমূখ। কর্মসুচী শেষে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন শিশু নিউরোলজি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. গোপেন কুমার কুণ্ডু এবং সঞ্চালনা করেন ইপনার ট্রেনিং কো-অর্ডিনেটর ডা. মাজহারুল মান্নান।

 

To See the Photos Click Here

05Mar 2022

১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২২ তারিখ, সোমাবার দুপুর ১২ ঘটিকায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) অবস্থিত ইপনায় আন্তর্জাতিক এপিলেপ্সি দিবস উদযাপিত হয়েছে। এ উপলক্ষ্যে “Dietary therapies in intractable epilepsy and beyond” শীর্ষক একটি সেমিনারের আয়োজন করা হয় যাতে স্পিকার হিসেবে ছিলেন ভারতের নিউদিল্লীতে অবস্থিত AIIMS এর চাইল্ড নিউরোলোজি ডিভিশনের প্রধান প্রফেসর শেফালী গুলাটি। ইপনার সেমিনার হলে অনুষ্ঠিত এ সেমিনারে আরো উপস্থিত ছিলেন – ইন্সটিটিউট অব পেডিয়াট্রিক নিউরোডিজঅর্ডার এন্ড অটিজম (ইপনা)-এর পরিচালক ও বিএসএমএমইউ’র শিশু অনুষদের ডীন প্রফেসর ডা. শাহীন আখতার, ইপনার উপ-পরিচালক (একাডেমিক) ডা. কানিজ ফাতেমা, সহযোগী অধ্যাপক ডা. সৈয়দা তাবাস্সুম আলম, শিশু নিউরোলোজি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডাক্তার গোপেন কুমার কুন্ডু ও ইপনার প্রশিক্ষণ সমন্বয়কারী ডাক্তার মাজহারুল মান্নান প্রমূখ।

Click here to see the more photos

04Nov 2021

Knowledge sharing seminar on “Enhancement the treatment of Neurodevelopmental Disabilities (NDDs) for children in Bangladesh” has been held in IPNA Seminar room on 4 Novermber, 2021. This seminar organised by IPNA and KOICA Bangladesh. Among others IPNA Director and Dean of Paediatrics Faculty Prof. Dr. Shaheen Akhter and KOICA Country Director Ms. Young-Ah Doh were present this seminar.

For visit photo gallery please click here

29Sep 2021

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার ৭৫তম জন্মদিন উপলক্ষ্যে অটিজম বৈশিষ্ট্য সম্পন্ন শিশুদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়-এর ইন্সটিটিউট অব পেডিয়াট্রিক নিউরোডিজঅর্ডার এন্ড অটিজম (ইপনা)য় অনুষ্ঠিত হয়।

Press Release Final

ফটো গ্যালারী

17Jun 2021

Dr Kazi Ashraful Islam, Assistant professor of Institute of Paediatric Neurodisorder & Autism, is receiving grant from honorable Vice chancellor of Bangabandhu Sheikh Mujib Medical university Prof Dr Sharfuddin sir for his research. His present work on clinical and radiological profile of viral encephalitis. Here Prof Dr Shaheen Akhter, Director of the Institute, Dr Kanij Fatema Associate Professor and Dr Krishno Mahon Podder are the co investigator of this study. Earlier Dr Islam conducted many study and published it in national and international journals.

We wish the success of this work.

06Jun 2021

৫ জুন ২০২১ তারিখ, শনিবার সকাল ১১ ঘটিকায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) অবস্থিত ইপনা এবং ডিআরআরএ-এর মধ্যে মস্তিস্কের বিকাশজনিত সমস্যায় আক্রান্ত শিশু ও তাদের অভিভাবকদের জন্য টেলিমেডিসিন সেবা প্রদানে একটি সমঝোতা চুক্তিপত্র স্বাক্ষরিত হয়েছে। ইপনার সেমিনার হলে অনুষ্ঠিত এ সমঝোতা চুক্তিপত্রে স্বাক্ষর করেন- ইন্সটিটিউট অব পেডিয়াট্রিক নিউরোডিজঅর্ডার এন্ড অটিজম (ইপনা)-এর পক্ষে পরিচালক ও বিএসএমএমইউ’র শিশু অনুষদের ডীন প্রফেসর ডা. শাহীন আখতার এবং ডিজএবলড রিহ্যাবিলিটেশন এন্ড রিসার্চ এ্যাসোসিয়েশন (ডিআরআরএ) এর পক্ষে নির্বাহী পরিচালক ফরিদা ইয়াসমিন। এই সময়ে উপস্থিত ছিলেন- ইপনার উপ-পরিচালক (একাডেমিক) ডা. কানিজ ফাতেমা, সহযোগী অধ্যাপক ডা. সৈয়দা তাবাস্সুম আলম ও প্রশিক্ষণ সমন্বয়কারী ডাক্তার মাজহারুল মান্নান এবং ডিআরআরএ-এর অ্যাডভোকেসী, কমিউনিকেশন উপদেষ্টা স্বপনা রেজা, প্রকল্প ব্যবস্থাপক দেবেষ দাশ প্রমূখ।

30Apr 2021

বিশ্ব অটিজম সচেতনা দিবস উপলক্ষে গৃহীত কর্মসূচীর অংশ হিসেবে গত ২৮ এপ্রিল ২০২১ইং তারিখে ইনস্টিটিউট অব পেডিয়াট্রিক নিউরোডিজঅর্ডার এন্ড অটিজম (ইপনা) এর উদ্যোগে চিকিৎসক, সাইকোলজিস্ট এবং থেরাপিস্টদের নিয়ে এক ওয়েবিনারের আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে অংশগ্রহণ করেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যায়ের মাননীয় উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ। অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন ইপনা এর পরিচালক ও শিশু অনুষদের ডীন অধ্যাপক ডা. শাহীন আকতার।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যায়ের মাননীয় উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মোঃ শারফুদ্দিন আহমেদ বলেন, সুবিধা বঞ্চিত বিশেষ শিশুদের সার্বিক উন্নয়নে ইপনা অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। বিশেষ করে সুবিধা বঞ্চিত এ ধরণের শিশু ও তাঁদের অভিভাবকদের সমস্যা সমাধানের মানবিক প্রয়াস নিয়ে উন্নত গবেষণা ও প্রশিক্ষণ কর্মসূচীতে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখছে এই ইনস্টিটিউটটি। ইপনা সারা দেশ থেকে আগত বিভিন্ন পর্যায়ের ডাক্তার, সাইকোলজিস্ট, থেরাপিস্ট, অভিভাবক, প্রাথমিক ও মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক, সরকারী ও বেসরকারী কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ প্রদান করে থাকে। ২০১৭ সালে ইপনা দেশব্যাপী অটিজম বিষয়ে সবচেয়ে বড় জরিপ কার্যক্রম পরিচালনা করে। জরিপে প্রতি ১০০০০ জনে ১৭টি অটিজম বৈশিষ্ট সম্পন্ন শিশু পাওয়া যায়। আগামী দিনে ইপনার গবেষণা, প্রশিক্ষণ কর্মসূচীসহ সেবামূলক সকল ধরণের কার্যক্রমে বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্তমান প্রশাসন সার্বিক সহায়তা প্রদান করে যাবে।

ওয়েবিনারে জানানো হয়, ইপনা ২০১৮ সালের জুলাইয়ে বিএসএমএমইউ কর্তৃক আত্মীকরণকৃত হয়। এর আগে ক্রমান্বয়ে বাড়তে থাকা চাহিদার পরিপ্রেক্ষিতে এবং বিশ্বব্যাপী পরিচিত অটিজম বিশেষজ্ঞ, ডাব্লিউএইচও’র দক্ষিণ এশিয়া বিষয়ক বিশেষ প্রতিনিধি ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র সুযোগ্য কন্যা, বঙ্গবন্ধুর দৌহিত্রা সায়মা হোসেন ওয়াজেদ পুতুলের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় একটি মাল্টি-ডিসিপ্লিন্যারি টীম নিয়ে গঠিত হয় ‘সেন্টার ফর নিউরোডেভলপমেন্ট এন্ড অটিজম ইন চিলড্রেন সংক্ষেপে সিন্যাক। যা ২০১০ সালে জুলাই মাসে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উদ্বোধন করেন। ওয়েবিনারে আরো জানানো হয়, ইপনাতে রয়েছে ৫০ আসন বিশিষ্ট ইপনা অটিজম স্কুল। শিক্ষার্থী শিক্ষক ২:১ অনুপাতে পরিচালিত স্কুলে হোম ভিজিট কর্মসূচীও চালু আছে। ইপনার উদ্যোগে বিভিন্ন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক দিবস পালন, সেমিনার সিম্পোজিয়াম, ওয়ার্কশপ আয়োজন করা হয়ে থাকে। এছাড়া এসব বিষয়ের উপর লিফলেট, বুকলেট, ফ্লায়ার প্রকাশ ও জনগণের মাঝে তা বিতরণ করে থাকে। অটিজম ও ¯œায়ুবিকাশ জনিত সমস্যা সমাধান উন্নত সেবা প্রদানে সক্ষম দক্ষ জনশক্তি তৈরির লক্ষ্যে দেশে ইপনাই প্রথম চালু করেছে ছয় মাস মেয়াদী সার্টিফিকেট কোর্স অন নিউরোডেভলপমেন্টাল ডিজঅর্ডারস শীর্ষক পূর্ণাঙ্গ কোর্স। ইপনা এর সেবা, অর্জিত জ্ঞান এবং অভিজ্ঞতা সারা দেশে ছড়িয়ে দিতে বদ্ধ পরিকর। ইপনা ‘যতেœ সেবায় ভালোবাসায় বদলে দেই, এই স্লোগান নিয়ে সামনের দিকে এগিয়ে যাবেই।

Click here to see the more photos